ঢাকা, রবিবার, ২৭ নভেম্বর ২০২২, ১৩ চৈত্র ১৪২৯, ৩ জ্বমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪

ভাঙ্গা পর্যন্ত জবির বাস দাবি, সেতু চালুর পর সিদ্ধান্ত


প্রকাশ: ১১ জুন, ২০২২ ০৭:৫৭ পূর্বাহ্ন


ভাঙ্গা পর্যন্ত জবির বাস দাবি, সেতু চালুর পর সিদ্ধান্ত

জবি প্রতিনিধি: জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ে (জবি) অধ্যয়নরত দেশের দক্ষিণ অঞ্চলের শিক্ষার্থীরা ফরিদপুরের ভাঙ্গা পর্যন্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের বাস চালুর দাবি জানিয়েছে। তবে এখনই সিদ্ধান্ত নয়, পদ্মা সেতু চালু হলে সবকিছু বিবেচনা করে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে বলে জানান বিশ্ববিদ্যালয়টির উপাচার্য অধ্যাপক ড. ইমদাদুল হক। 

আজ শনিবার (১১ জুন) মুঠোফোনে এই প্রতিবেদককে উপাচার্য বলেন, বাসের বিষয়ে এখনই কোন সিদ্ধান্ত নেয়া যাবে না। আগে পদ্মা সেতু চালু হোক। সেতুর টোল খরচ অনেক। প্রতিদিন যাওয়া আসার অনেক খরচ বেড়ে যাবে। সবকিছু বিচার বিবেচনা করে দেখতে হবে।

বর্তমানে মাওয়া পর্যন্ত চালু বাস ভাঙ্গা পর্যন্ত যাওয়ার বিষয়ে ড. ইমদাদুল হক আরও বলেন, আমাদের চাহিদার শেষ নেই। বিশ্ববিদ্যালয়ের বাস ভাঙ্গা পর্যন্ত দিলে অনেকে বলবে শরিয়তপুর দিতে হবে। অনেকে দাবি করবে যমুনা সেতুর ওপার দিতে হবে। সব চাহিদা মেটানো সম্ভব নয়। এছাড়া মুটামুটি দূরে যে বাসগুলো যায়, কতজন যায় বা বিশ্ববিদ্যালয়ে খরচ কেমন হয়, সবকিছু বিবেচনা করে দেখা হবে।

এদিকে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শিক্ষার্থীরা দাবি জানিয়ে বলেন, আমরা দক্ষিণবঙ্গের শিক্ষার্থীরা পদ্মা সেতু চালু হওয়ার সাথে সাথেই দক্ষিণাঞ্চলের ১৯ টি জেলার মিলিত স্থান 'ভাঙ্গা মোড়' পর্যন্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের বাস চাই। কেউ কেউ বলছেন, বড় সমস্যা যেহেতু টোল, পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় হিসেবে ও দক্ষিণ অঞ্চলের এতো শিক্ষার্থীদের কথা চিন্তা করে, টোল মওকুফ করার বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের চ্যান্সেলর ও মহামান্য রাষ্ট্রপতি বরাবর আবেদন করা যায়।  

এদিকে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় থেকে কুমিল্লায় পর্যন্ত একটি বাস চালু রয়েছে। এর প্রসঙ্গ টেনে শিক্ষার্থীরা বলেন, ঢাকা থেকে কুমিল্লার দুরত্ব ৯০ কি.মি. এর মতো। আর ঢাকা থেকে ভাঙ্গার দুরত্ব ৭০ কি.মি. এর মতো। কুমিল্লা বাস যেতে পারলে পদ্মা সেতু চালু হওয়ার পর ভাঙ্গা পর্যন্ত বাস যেতেই পারে।
 


   আরও সংবাদ